টেক জ্ঞান

ব্যাকলিংক কি? কাকে বলে? ব্যাকলিংক কিভাবে ব্যবহার করবেন? ২০২২

ব্যাকলিংক কি? ব্যাকলিংক কাকে বলে, ব্যাবলিংক কিভাবে ব্যবহার করবেন ইত্যাদি সকল প্রশ্নের উত্তর জানতে সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন।

একটি ওয়েবসাইট থেকে অন্য আরেকটি ওয়েবসাইট ভিজিট  করতে পারার পদ্ধতিকে বলা হয় ব্যাকলিংক বা এক্সট্রারনাল লিংক (External Link)।

ব্যাকলিংক এর আরেকটি নাম হচ্ছে বিল্ডিং লিংক (Building Link) যা SEO এর একটি অংশ, SEO শব্দটি যখন এসেছে তাহলে চলুন প্রথমে জেনে নেয়া যাক SEO সম্পর্কে।

SEO কয় ধরনের ও কি কি?

আমরা জানি SEO সাধারণতদুই ধরনের হয়ে থাকে। 

  • ১ম হলো  On Page SEO
  • ২য় হলো Off Page SEO 

On Page SEO এবং Off Page SEO দুটির দ্বারা একটি ওয়েবসাইট বড় হয়ে থাকে অর্থাৎ ওয়েবসাইট এর যত রকমের কাজ রয়েছে সকল কাজই On page SEO ও Off Page SEO এর মাধ্যমে পরিচালিত হয়।

ব্যাকলিংক কোন SEO তে থাকে?

SEO এর পূর্ণরূপ হলো Search Engine Optimization।
ব্যাকলিংক সাধারণত থাকে Off Page SEO এর মাঝে এবং এই ব্যাকলিংক এর কাজ বা Off Page SEO এর কাজ হচ্ছে ওয়েবসাইটে বেশি বেশি ট্রাফিক আনা। যাতে করে ভিজিটর বাড়ে এবং আয় বেশি হয় ওয়েবসাইট থেকে।

On Page SEO কি এবং এর কাজ কি?

On page SEO হলো ওয়েব পেজের ভিতরে থাকা সকল বিষয়বস্তুকে নির্ভূল ও ট্রাফিক ফ্রেন্ডলি করে তুলার একটি মাধ্যম। 

On Page SEO এর কাজ হলো একটি ওয়েবসাইটে যতগুলি কন্টেন্ট থাকে সে কন্টেন্টগুলিকে ব্যবহারকারী বান্ধব (User Friendly) এবং সার্চ ইঞ্জিন বান্ধব (Search engine friendly) হিসাবে গড়ে তুলা হচ্ছে এর মূল কাজ এবং বিশেষ করে কন্টেন্ট এর টাইটেল ট্যাগ, ম্যাটা ট্যাগ আর কীওয়ার্ড কে সঠিকভাবে অপ্টিমাইজেশন করাকে On Page SEO বলা হয় ।

যেহেতু আজ আমরা ব্যাকলিংক সম্পর্কে জানবো তাই এই আর্টিকেলে শুধুমাত্র Off Page SEO নিয়ে আলোচনা করবো কেনো না ব্যাকলিংক Off Page SEO এরই একটি অংশ।

ব্যাকলিংক কাকে বলে?

ব্যাকলিংক সহজ ভাষায় বুঝতে উদাহরণটি পড়ুন: আমাদের মানবজাতির জন্য প্রতিনিয়ত রুচিসম্মত খাবার এর চাহিদা সৃষ্টি হয় এবং এই চাহিদা মেটানোর জন্য প্রতিনিয়ত বাজারে নিয়ে আসা হয় নতুন নতুন খাবার।

নতুন এই খাবার নিয়ে আসলেও এর চাহিদা কম থাকে এর কারণ হচ্ছে কেউ এই খাবার এর সাথে পরিচিত নয় যার জন্য নতুন চাহিদা মেটানোর উদ্দেশ্যে যে খাবারটি বাজারে আনা হয় তার বিক্রির চাহিদা তেমন থাকে না।

নতুন এই খাবার এর চাহিদা বাড়ানোর জন্য অন্য সব খাবারে সাথে এর তুলনা করা হয় বা নানা ধরনের বিজ্ঞাপনে এর মাধ্যমে নতুন খাবারটির বৈশিষ্ট্য সম্পর্কে বার্তা দেয়া হয় এবং আস্তে আস্তে বাজারে এর চাহিদা ব্যাপক হারে বাড়তে থাকে।

এখানে খাবারটি হলো আপনার ওয়েবসাইট এবং বিজ্ঞাপন মাধ্যমটি হলো ব্যাকলিংক, যদি আপনার ওয়েবসাইট এ বেশি বেশি ট্রাফিক অর্থাৎ ভিজিটর আনতে চান তাহলে আপনার প্রয়োজন ব্যাকলিংক ।

ব্যাকলিংক এর সুবিধা কি?

ব্যাকলিংক ব্যবহার করলে আপনার ওয়েবসাইটে প্রতিদিন যে পরিমাণ ভিজিটর আসতো তার ২দিগুন আসবে তবে ব্যাকলিংক ব্যবহার করার কিছু নিয়ম আছে সেগুলি মেনে কাজ করতে পারলে আপনার ব্যাবলিংক ব্যবহার করা সার্থক হবে।

ব্যাকলিংক কিভাবে ব্যবহার করবেন?

আপনি সেই সব ওয়েবসাইটের সাথে আপনার কানেকশন রাখবেন যাদের ভিজিটর আপনার থেকেও অনেক বেশি এবং তাদের সাথে আপনার কাজের মিলা রয়েছে তবে এমনটি নয় আপনি যা পোস্ট করেছেন ঐ ওয়েবসাইটিতেও একই পোস্ট করেছে।

ক্যাটাগরি মিল রাখবেন আপনি যদি প্রযুক্তিগত সাইট তৈরি করেন তাহলে আপনার ব্যাকলিংকও নিবেন প্রযুক্তিগত সাইট থেকে আর এর সুবিধা হবে আপনার কোন পোস্ট ইউনিক হয় তাহলে ঐ সাইট ভিজিটরগুলি আপনার সাইটের পোস্ট এর প্রতি আকর্ষণ প্রকাশ করবে যার ফলে আপনার সাইটে ভিজিটর বাড়বে।

ব্যাকলিংক নিয়ে শুধু ইউনিক কন্টেন্ট দিলেই হবে না, আপনাকে আপনার ওয়েবসাইট এর মান উন্নত করতে হবে। আপনার ওয়েবসাইট দেখে জেনো খুব সহজেই বুঝা যায় সাইটে কি কি আছে আর সাইটের ফন্ট অর্থাৎ বর্ণগুলি চোখে ভালো লাগার মত দিতে হবে তাহলেই আপনার ব্যাকলিংক এর সার্থকতা আসবে।

ব্যাকলিংক কি আরো সহজ ভাষায় জানুন?

নতুন অবস্থায় ব্যাকলিংক সম্পর্কে আপনার বুঝতে একটু অসুবিধা হতে পারে, তাই সহজভাবে বুঝার জন্য প্রয়োজন একটু মনোযোগ।

ব্যাকলিংক হলো আপনার ব্লগ সাইট অথবা ওয়েবসাইট এর URL লিংক অন্য আরেকটি ওয়েবসাইটে অথবা ব্লগে থাকা এবং এই ব্যাকলিংক এর ফলে আপনি আপনার ওয়েবসাইট বা ব্লগের জন্য বাহ্যিক সহায়তা পাবেন যাকে ইংরেজিতে External Link বলা হয়।

ব্যাকলিংক এর উপকারিতা কি?

আমি যদি একটি ওয়েবসাইট বা ব্লগ সাইটের যেকোন একটি আর্টিকেলে আপনার একটি ইউনিক পোস্টের URL অথবা আপনার সাইটের URL লিংক শেয়ার করে থাকি তাহলে আমার সেই আর্টিকেলটি হবে ব্যাকলিংক আর আপনি হবেন ব্যাকলিংক প্রাপ্ত।

আপনি যদি এমনই করে বেশ ভালো কিছু সাইটে অর্থাৎ আপনার সাইটের থেকেও বেশি ভিজিটর আসে এমন সব সাইটের ব্যাকলিংক নিতে পারেন তাহলে খুব দ্রুত তার সাথে আপনার সাইট এর ভিজিটর বাড়বে এবং শুধু তাই নয় যত বেশি ব্যাকলিংক নিতে পারবেন আপনার ওয়েবসাইট বা ব্লগ সাইট এর Google Search Ranking বাড়বে।

ব্যাকলিংক কত প্রকার ও কি কি?

ব্যাকলিংক প্রধানত ৭ প্রকার।

  • Internal Links
  • External Links
  • Juice Links
  • Low Quality Links
  • High Quality Links
  • No Follow Links
  • Do Follow Links

তো এভার চলুন এক এক করে জানা যাক এই ৭টি ব্যাকলিংক এর কাজ কি ও কিভাবে ব্যবহার করা হয়।

এটি ব্যবহার করা হয় নিজেদের ওয়েবসাইটে বা ব্লগ সাইটে। বেশি ভিজিটর আনার জন্য একটি আর্টিকেলের মাঝে অন্য আরেকটি আর্টিকেল এর লিংক দেয়া হয়। অর্থাৎ ভিজিটরকে সাজেশন দেয়া হয়, যাতে ভিজিটর চাইলে একই বিষয় সম্পর্কে আরেকটি আর্টিকেল পড়তে পারবে।

External Links মানে আপনি আপনার নিজের ওয়েবসাইট বা ব্লগ সাইটের কোন একটি আর্টিকেলের বা আপনার নিজের ওয়েবসাইটের URL লিংক অন্য আরেকটি ওয়েবসাইট অথবা ব্লগ সাইটের একটি আর্টিকেলের মাধ্যমে প্রচার করলেন। সেটিকেই External Links বলা হয়।

Juice Links হলো অন্য কারো ওয়েবসাইট অথবা ব্লগ সাইটের মাধ্যমে হাইপার লিংক ব্যবহার করে ব্যাকলিংক তৈরি করা। Google Robots সে লিংক অনুসরণ করে আপনার সাইটে জুস লিংক পাস করে এবং এই জুস লিংক আপনার ওয়েবসাইট বা ব্লগ সাইটের Domain Authority বাড়িয়ে Google এর Search engine traffic বাড়াতে সহায়তা করে।

আপনার সাইটের জন্য অত্যন্ত ক্ষতিকারক, এই সব সাইটগুলি সফলতার সাথে এগিয়ে যায় ঠিকই কিন্তু Low Quality হওয়ায় এদের থেকে আপনি নিজেও Low Quality ব্যাকলিংক পাবেন এবং Low Quality ব্যাকলিংক ধীরে ধীরে আপনার সাইটের ক্ষতিগ্রস্ত করতে থাকবে যেমনঃ ভিজিটর হারাবেন অনেক বেশি।

আপনি যখন কোন High Quality ওয়েবসাইট থেকে ব্যাকলিংক পান এবং যার DP বা PA অনেক ভালো তখন আপনার ওয়েবসাইট বা ব্লগটির ব্যাকলিংক High Quality External Links হয়ে যায় এবং এজন্যই দিন দিন আপনার সাইটের ভিজিটর এর সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে খুব দ্রুত।

আপনি যদি অন্য কোন ওয়েবসাইট বা ব্লগ সাইট থেকে ব্যাকলিংক নিয়ে থাকেন এবং সেই ব্যাকলিংকে “rel=nofollow” ট্যাগ ব্যবহার করা হয় তাহলে তাকে No Follow Links বলা হয়। No Follow Links কোন বিশেষ কাজের না তার কারণ হচ্ছে এই সব লিংকে Google এর Robots জুস পাস করে না এবং এই ব্যাকলিংক ব্যবহার করে নতুনত্ব আসে না ওয়েবসাইটে।

Do Follow Links হলো যখন আপনার ব্লগে অন্য ব্লগ থেকে “rel=nofollow” ট্যাগ আসে না বা ব্যবহার করা হয় না “rel=nofollow” ট্যাগ তখন Do Follow Links ট্যাগটি আসে। এই লিংকটি আপনার ওয়েবসাইট অথবা ব্লগ এর জন্য বেশ ভালো কেনো না, যখন Do Follow লিংকটি আসে তখন Google এর Robots Juice pass জুস পাস করে।

ব্যাকলিংক নিয়ে শেষ কথা!

একটি ওয়েবসাইট বা ব্লগের জন্য ব্যাকলিংক তৈরি করা অত্যন্ত ভালো তবে মনে রাখতে হবে কোন ভাবে Low Quality লিংক ব্যবহার করা যাবে না। যদি এমনটি করেন তাহলে আপনার ওয়েবসাইট বা ব্লগ সাইট Google Search Engine Ranking এ অনেক পিছিয়ে যাবে সুতরাং অবশ্যই ভালো মানের সাইট থেকে ব্যাকলিংক নিবেন।

ফ্রিতে ব্যাকলিংক তৈরি করুন।

Blog Commenting ব্যাকলিংক খুব সহজ ও বর্তমানে প্রায় সব ব্লগার এই কাজ করে থাকে যদি আপনি Blog Commenting সম্পর্কে না জেনে থাকেন তাহলে এই আর্টিকেল আপনার জন্য বেশ উপকারী হবে সুতরাং সম্পূর্ণ আর্টিকেলটি পড়ুন।

প্রথমে আপনাকে যে কাজটি করতে হবে তা হলো, আপনি যে ক্যাটাগরিতে ব্লগিং করেন সেই ক্যাটাগরির অন্য কারো একটি ব্লগ সাইটের কোন একটি কন্টেন্ট এর মাঝে কমেন্ট করবেন এবং সেই কমেন্টের সাথে আপনি আপনার ব্লগ সাইটের URL Address দিয়ে সাবমিট করে দিবেন।

যদি আপনার কমেন্ট সেই সাইটের পোস্ট এর কমেন্ট সেকশনে দেখানো হয় তাহলে মনে করবেন আপনার একটি ব্যাকলিংক তৈরি হয়েছে। আপনি আরেকটি বিষয় মনে রাখবে। অন্য সব সাইটে শুধু কমেন্ট করবেন এবং আপনার সাইটের URL Address দিবেন, অযথা কিছু বা অতিরিক্ত কোন কিছু শেয়ার করবেন না, তাহলে ঝামেলা হলেও হতে পারে।

যদি কমেন্ট সেকশনে আপনার পোস্ট এর লিংক দিতে চান তাহলে ব্লগ সাইটটি যার তার সাথে কথা বলে অনুমতি নিয়ে তারপর কাজ করবেন। ব্যাকলিংক করতে গিয়ে যে সব ভূল কাজ করি তাহলো Low Quality সাইটে কমেন্ট করে ব্যাকলিংক তৈরি করি যা অত্যন্ত ক্ষতিকর এবং Spammy সাইটগুলিতেও কমেন্ট করবেন না।

ব্যাকলিংক আরো অনেক সাইটে বা উপায়ে করা যায় এবং আপনি যদি সেগুলি সম্পর্কে জানতে চান তাহলে ফেইসবুক এ আমাদের গ্রুপ আছে সেখানে জয়েন হতে পারেন ।

এই আর্টিকেলেও কমেন্ট করে বাকি সব ব্যাকলিংক তৈরি করার উপায় ও মাধ্যমগুলি সম্পর্কে জানতে পারবেন।

ধন্যবাদ

জাহিদুল ইসলাম

শিখতে ভালোবাসি :)

সম্পর্কিত আর্টিকেল

মন্তব্য করুন

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Back to top button

অ্যাডব্লকার ডিটেক্টেড

আপনি সম্ভবত অ্যাডব্লকার ব্যবহার করছেন। আমাদের সাইট ভিজিট করতে চাইলে অবশ্যই অ্যাডব্লকার ডিজেবল করতে হবে।