অনলাইন আয়টিপস এন্ড ট্রিকস

অনলাইনে ইনকাম বাংলাদেশী সাইট ২০২৩ – পেমেন্ট বিকাশ, নগদ, রকেট

বাংলাদেশী ইনকাম ওয়েবসাইট, রিয়েল ইনকাম সাইট, ফ্রি টাকা ইনকাম বিকাশে আয় করার সাইট, অনলাইন ইনকাম ইন বাংলাদেশ

২০২৩ এ এসেও অনেকে মনে করে অনলাইনে আয় করা সম্ভব না। আপনার এই ধারনা যদি থেকে থাকে, তাহলে আপনি একদম ভুল। আমরা নিজেরাই এই ওয়েবসাইট থেকে মাসে ভালো পরিমাণে অর্থ উপার্জন করি।

আজকে আপনাদের সাথে এমন একটি ওয়েবাসাইটের পরিচয় করিয়ে দিবো, যেই সাইট থেকে আপনি খুব সহজেই অনলাইনে ইনকাম করতে পারবেন।

এই সাইটে কাজ করে আপনি যে টাকা আয় করবেন তা সহজেই বিকাশ, রকেট ও নগদের মাধ্যমে তুলে নিতে পারবেন।

চলুন জানি কিভাবে এই সাইট থেকে ইনকাম করবেন? কিভাবে ইনকাম করা টাকা তুলবেন? কি কি কাজ করা যাবে? ইত্যাদি সম্পর্কে।

অনলাইনে ইনকাম করা সবার পক্ষে সম্ভব নয়। কারণ সবার সব ধরনের কাজ ভালো লাগেনা।

আজকে এই আর্টিকেলে আপনাদের সাথে এমন একটি সাইট নিয়ে আলোচনা করবো। যেখানে বিভিন্ন ধরনের টপিকের কাজ আছে। চলুন শুরু করি…

Maxclerk থেকে অনলাইনে ইনকাম

Maxclerk একটি অনলাইনে টাকা আয় করার ওয়েবসাইট। এটিকে বাংলাদেশী অনলাইন ইনকাম সাইট বলা যায়। বলার কারণ হলো এই সাইটের টাকা তুলার মাধ্যম।

এই ইনকাম সাইট থেকে আপনি সহজেই বিকাশ, রকেট ও নগদের সাহায্যে টাকা তুলতে পারবেন।

এই সাইটের সবচাইতে বড় সুবিধাহলো এখানে আপনি অনেক ধরনের কাজ পাবেন। এমনকি অনেক ক্যাটাগরির কাজ আছে এই সাইটে।

আপনার যত ইচ্ছা তত কাজ এই সাইটে করতে পারবেন। অর্থাৎ আনলিমিটেড কাজ করে আনলিমিটেড টাকা ইনকাম করা সম্ভব এই ওয়েবসাইট থেকে।

Maxclerk সাইটে বিভিন্ন ক্যাটাগরির বিভিন্ন কাজ রয়েছে। আপনি যদি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমগুলো ইউজ করেন তাহলে আপনি অনেক কাজ পেয়ে যাবেন। যেমনঃ টুইটার, ফেসবুক, টিকটক, ইনস্টাগ্রাম, লিংকেডইন, ইউটিউব ইত্যাদি মাধ্যম ব্যবহার করে এই Maxclerk সাইটে কাজ করতে পারবেন।

Maxclerk ওয়েবসাইটে ২টি ক্যাটাগরি রয়েছে। এখান থেকে আপনার পছন্দের ক্যাটাগরি বেছে নিয়ে কাজ করতে পারবেন।

আরও পড়ুনঃ  মোবাইল দিয়ে ফ্রিল্যান্সিং কিভাবে শিখবো

Maxclerk সাইটের আরও একটি সুবিধা হলো এই সাইটে আপনি ১ ডলার ইনকাম করলেই বিকাশ ও রকেটের সাহায্যে টাকা তুলতে পারবেন।

Maxclerk সাইটের যে কাজ সেগুলো খুবই সহজ। এই সাইটের কাজগুলো এমনঃ কারোর ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে ইনকাম করা, কারোর টিকটক অ্যাকাউন্টে ফলো করে ইনকাম করা ইত্যাদি।

আপনি যদি এই ধরনের সহজ কাজগুলো করে অনলাইনে ইনকাম করতে চান তাহলে সম্পূর্ণ ইনকাম করার প্রসেস আপনাকে জানতে হবে।

আমি Maxclerk সাইটে সাইনআপ থেকে শুরু করে কিভাবে ইনকাম করবেন তার সকল তথ্য আপনাকে জানাবো। চলুন শুরু করি।

Maxclerk ওয়েবসাইটে সাইন আপ করবেন কিভাবে?

Maxclerk সাইটে অনলাইনে ইনকাম করার জন্য প্রথমে তাদের সাইটে অ্যাকাউন্ট তৈরি করা লাগবে। অ্যাকাউন্ট তৈরি করার জন্য আপনাকে নিচের ওয়েবসাইটে চলে যেতে হবে।

উপরের লিংকে ক্লিক করলে আপনার সামনে একটি ফর্ম ওপেন হবে। সেই ফর্মে থাকা সকল ঘরগুলো সঠিকভাবে পূরণ করতে হবে।

এই ফরমের শুরুতে ফ্রিল্যান্সার অপশন সিলেক্ট করবেন। যেহেতু আপনি কাজ করবেন তাই ফ্রিল্যান্সার অপশন সিলেক্ট করতে হবে।

তারপর আপনার পূরো নাম, আপনার জিমেইল বা ইমেইল অ্যাড্রেস, পাসওয়ার্ড এবং দেশ হিসেবে বাংলাদেশ দিতে হবে।

এগুলো দেওয়ার পর সাইন আপ বাটনের উপরে ক্যাপচা দেখতে পাবেন সেই ক্যাপচা সঠিকভাবে পূরন করতে হবে। তারপর সাইন আপ বাটনে ক্লিক করলেই অ্যাকাউন্ট খোলা হয়ে যাবে।

সাইনআপ করা হয়ে গেলে আপনাকে তারা একটি মেইল পাঠাবে। সেই মেইলে ক্লিক করলে মেইল ভেরিফাই হবে এবং আপনার অ্যাকাউন্টটি সঠিকভাবে কনফার্ম হবে।

মেইলে ক্লিক করে যদি অ্যাকাউন্ট কনফার্ম না করেন, তাহলে আপনার অ্যাকাউন্ট এক্টিভ হবেনা। ফলে আপনি কোন কাজ করতে পারবেন না।

অ্যাকাউন্ট এক্টিভ হয়ে গেলে অটো লগইন হয়ে যাবে। লগইন না হলে অবশ্যই লগইন করে নেবেন।

লগইন করা হলে দেখতে পাবেন আপনার অ্যাকাউন্টে ০.৫ ডলার যুক্ত হয়ে গেছে। এই ডলার নতুন ইউজারদেরকে অ্যাকাউন্ট খোলার পর দেয়।

অ্যাকাউন্ট খোলা হয়ে গেছে, এবার আমাদের অ্যাকাউন্টটিকে সুন্দরভাবে গোছাতে হবে।

গোছাতে হবে বলতে, আপনার প্রোফাইলের সকল তথ্যগুলো সঠিকভাবে ফিলাপ বা পূরন করতে হবে। যাতে করে আপনার ক্লাইন্ট আপনাকে বিশ্বাস করতে পারে।

Maxclerk থেকে কিভাবে ইনকাম করবেন?

Maxclerk থেকে অনলাইনে ইনকাম করার জন্য মাইক্রো জব ও ফাইন্ড সার্ভিস নামের দুটি অপশন রয়েছে।

আরও পড়ুনঃ  এআই দিয়ে ছবি এডিট করে ইনকামের উপায়

এই দুটি অপশন ছাড়াও আরও বেশ কিছু অপশন রয়েছে, তবে আমরা যেহেতু ইনকাম করবো, তাই এই দুটি বিষয়ে আমাদের জানতে হবে।

মাইক্রো জবস – Micro Jobs

Maxclerk থেকে ইনকাম করার দুটি অপশনের মধ্যে মাইক্রো জবস একটি। এই মাইক্রো জবস অপশনে আবার ৩টি সাব ক্যাটাগরির  কাজ আছে।

কাজগুলো খুব ছোট ছোট, তাই এই ক্যাটাগরিকে মাইক্রো জব নাম দেয়া হয়েছে।

মাইক্রোজব অপশনের মধ্যে যে ৩টি সাব ক্যাটাগরি আছে সেগুলোতে ভিন্ন ভিন্ন ধরনের কাজ পাবেন।

১ম সাব ক্যাটাগরির নাম হলো মাইক্রোজব, ২য়টির নাম সার্ভে জব ও ৩য়টির নাম হলো ই-কমার্স অফার।

এখন চলুন জানি এই ৩টি অপশনে কি কি কাজ করা যাবে।

মাইক্রো জবস – Micro Jobs

মাইক্রো জবস এর মধ্যে খুবই ছোট ছোট কাজ থাকবে। যেমনঃ জিমেইল খুলা, ফেসবুক পেজে লাইক দেয়া, টিকটক আইডিতে ফলো দেয়া, ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করা, অ্যাপ ডাউনলোড করা এবং বিভিন্ন ওয়েবসাইটে সাইন আপ করা।

এই ধরনের ছোট ছোট কাজ আপনারা মাইক্রোজবস সাব ক্যাটাগরিতে পেয়ে যাবেন। আশা করি এই কাজগুলো সবাই জানেন এবং কিভাবে করে তা পারেন।

এই কাজগুলো করে আপনাকে তার প্রমাণ হিসেবে ক্লাইন্টকে কাজের নির্দেশনা অনুযায়ী ফেসবুক প্রোফাইল লিংক, টিকটক প্রোফাইল লিংক, ইউটিউব চ্যানেল লিংক অথবা স্ক্রিনশট জমা দিতে হবে।

বুঝতেই পারছেন, এখানে কোন দুইনম্বরি করা যাবেনা। সঠিকভাবে কাজ করে প্রুভ সাবমিট করলেই আপনি ইনকাম করতে পারবেন।

সার্ভে জবস – Survey Jobs

Maxclerk থেকে ইনকাম করার আরেকটি সাব ক্যাটাগরি হলো এই সার্ভে জবস।

এই অপশনে আপনাকে বিভিন্ন সার্ভের প্রশ্নগুলোর উত্তর দিতে হবে। যখনি আপনি সার্ভেগুলো সম্পন্ন করবেন আপনার ইনকাম হবে।

তবে সার্ভে করে ইনকাম করতে হলে আপনাকে অবশ্যই প্রতিটি সার্ভের নিচে বাংলাদেশ লেখা দেখে অংশ গ্রহণ করতে হবে।

আরও পড়ুনঃ  BDTgame - প্রতিদিন ১০ হাজার টাকা আয় করার অ্যাপ

যে সার্ভেগুলোর নিচে বাংলাদেশ অথবা ওয়ার্ল্ড ওয়াইড লেখা থাকবে সেগুলোতেই আপনাকে কাজ করতে হবে। অন্যগুলোতে কাজ করলে আপনি ইনকাম করতে পারবেন না।

ই-কমার্স অফার – E-Commerce Offers

মাইক্রোজব ক্যাটাগরির সর্বশেষ সাব ক্যাটাগরি হলো এই ই-কমার্স অফারস।

এই অপশনে কাজ করলে আপনি সবচাইতে বেশী ইনকাম করতে পারবেন। তবে আপনি তখনি ইনকাম করতে পারবেন যখন এই ই-কমার্স অপশন থেকে লিস্টিং করা পণ্য  গুলো বিক্রি হবে।

আবার এই অপশন থেকে আপনি নিজে পণ্য কিনলেও ইনকাম করতে পারবেন।

এই ই-কমার্স অফারস অপশনে থাকা পণ্যগুলো বিক্রি হলে সেখান থেকে কমিশন অনুযায়ী আপনি ইনকাম করবেন।

আপনার ইনকামের টাকা বা ডিপোজিট করা টাকা দিয়ে এখান থেকে সহজেই পণ্য ক্রয় করতে পারবেন।

ফাইন্ড সার্ভিসেস – Find Services

Maxclerk থেকে ইনকাম করার ২য় অপশন হলো এই ফাইন্ড সার্ভিসেস। এই অপশনে আপনি নিজের সার্ভিস বিক্রি করে ইনকাম করতে পারবেন।

যেমনঃ মনে করুন আপনি ভালো ছবি বা ইউটিউবের থাম্বনেইল ইডিট করতে পারেন। এখন আপনি এই সার্ভিসটি Maxclerk সাইটের ফাইন্ড সার্ভিসেস অপশনে পোস্ট করবেন।

সেখানে আপনি উল্লেখ করে দিবেন যে, আপনি ছবি বা থাম্বনেইল বানিয়ে দিবেন এবং তার বিনিময়ে আপনি কত ডলার নিবেন।

আপনি এই অপশনে যখন আপনার সার্ভিসটি যুক্ত করবেন, তখন ক্লাইন্ট এই সার্ভিসটি নিতে চাইলে কিনে নিতে হবে।

এই অপশনকে আপনি ফাইভারের গিগের সাথে তুলনা করতে পারেন।

আপনি যেসব কাজ পারেন তার সব সার্ভিস হিসেবে যুক্ত করে দিন। যার প্রয়োজন সে এই সার্ভিসগুলো কিনে নিবে৷ আর আপনি ভালো পরিমাণের অর্থ ইনকাম করতে পারবেন।

সার্ভিস যুক্ত করার পূর্বে অবশ্যই অন্য ইউজারদের সার্ভিসগুলো দেখে নিবেন। তাদের দেয়া সার্ভিসগুলোতে কেমন টাইটেল, ডেসক্রিপশন দিয়েছে এগুলো ফলো করবেন।

নতুন অবস্থায় অন্যদের সার্ভিসের তুলনায় আপনার সার্ভিসের দাম কম রাখবেন। যখন দেখবেন ক্লাইন্ট আপনাকে দিয়ে কাজ করাচ্ছে নিয়মিত। তখন সেগুলোর দাম বাড়িয়ে দিবেন।

এভাবেই এই ফাইন্ড সার্ভিসেস অপশন দিয়ে ইনকাম করতে পারবেন।

Maxclerk থেকে ইনকাম নিয়ে শেষ কথাঃ

Maxclerk থেকে ইনকাম করার সকল বিষয় এই আর্টিকেলে আলোচনা করেছি।

Maxclerk সাইটটিকে বাংলাদেশী ইনকাম সাইট হিসেবে তুলনা করেছি। এর কারণ হলো এই সাইটের পেআউট অপশন। রকেট, বিকাশ ও নগদের মাধ্যমে টাকা তুলা যায় বলে এটিকে বাংলাদেশী ইনকাম সাইট বলা যায়।

আশা করি Maxclerk থেকে ইনকাম করার সকল বিষয় বুঝতে পেরেছেন। কিছু না বুঝে থাকলে কমেন্ট করুন। যথাযথ উত্তর দেয়ার চেষ্টা করবো। ধন্যবাদ।

সম্পর্কিত আর্টিকেল

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button

অ্যাডব্লকার ডিটেক্ট হয়েছে!

মনে হচ্ছে আপনি অ্যাড ব্লকার ব্যবহার করছেন। আমাদের সাইট ভিজিট করার জন্য আপনাকে অ্যাড ব্লকার বন্ধ করতে হবে। যদি অ্যাডব্লকার ব্যবহার না করেন, তাহলে পেজটি রিফ্রেশ করুন।